বিবাহ বিচ্ছেদে পুরুষের কষ্ট বেশি

553

নিউজ ৩৯ ডেস্ক ♦ বিবাহ বিচ্ছেদের পর নারীর চেয়ে বেশি কষ্ট পান পুরুষরা। মানিয়ে নেয়া বা মানিয়ে চলার অভ্যাস পুরুষদের মধ্যে বরাবরই কম। হয়তো সে কারণেই পুরনো অভ্যাস ছেড়ে নতুন জীবনের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলা কঠিন হয়ে পড়ে তাদের জন্য। কিন্তু ঠিক উল্টোটা ঘটে নারীর বেলায়।

বিচ্ছেদ হওয়া নারীকে সবাই করুণার পাত্রী মনে করলেও তারাই দ্রুত নতুন পরিস্থিতির সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে পারেন। এটিকে তারা দেখেন জীবনের নতুন লড়াই হিসেবে। আর সে লড়াইতে প্রাণপণে জেতার চেষ্টা করেন তারা।

অন্যদিকে বিচ্ছেদের পর মনের দিক দিয়ে পুরুষরা নারীদের চেয়ে বেশি ভেঙে পড়েন। এমনকি তাদের খাওয়া-দাওয়া এবং ঘুমেরও ব্যাঘাত ঘটে। সম্প্রতি প্রকাশিত এক জরিপে পাওয়া গেছে এসব তথ্য। ওই জরিপে দেখা গেছে, বিবাহ বিচ্ছেদের পর ৪৮ শতাংশ পুরুষ খুবই নিঃসঙ্গ বোধ করে। অন্যদিকে নারীদের মধ্যে এই হার কম। ৩৫ শতাংশ নারী নিজেকে নিঃসঙ্গ মনে করে।

অবশ্য পুরুষের এই ভেঙে পড়াটা পুরোপুরি আবেগের কারণে নয়। বিচ্ছেদের পর অর্থনৈতিক ধকলটা পুরুষকেই বেশি সামলাতে হয়। অন্যদিকে অর্থনৈতিক দিক থেকে নারীর জন্য ব্যাপারটা সহজ হয়ে দাঁড়ায়। অনেক ক্ষেত্রে এনে দেয় অর্থনৈতিক সচ্ছলতাও। বিচ্ছেদের পর নারী স্বামীর কাছ থেকে ক্ষতিপূরণ বা ভরণপোষণও আদায় করে নিতে পারে। এছাড়া বিচ্ছেদের ব্যাপারে বন্ধু-বান্ধবদের কাছ থেকেও তারা অনেক বেশি সহানুভূতি পেয়ে থাকে।

লন্ডনের বিবাহ বিচ্ছেদবিষয়ক আইনজীবী এডাম উইটকোভার ও ব্রস বেনেট অবশ্য এই জরিপের সঙ্গে পুরোপুরি একমত নন। তিনি বলেছেন, বিচ্ছেদের পর অনেক নারীও পুরুষদের মতোই হতাশায় ভোগেন। কারণ, তাদের অনেক বেশি ঝামেলার মুখে পড়তে হয়। প্রতিবেশী, বন্ধু-বান্ধব, পরিবার সবাই বেশিরভাগ ক্ষেত্রে আঙুল তোলে নারীর দিকেই। তবে ওই জরিপ বলছে, এসব ঝামেলা সামলেও বিচ্ছেদের পর পুরুষদের চেয়ে বেশি শক্ত থাকেন নারীরাই।

Comments

comments