শেখ হাসিনাকে ইউক্রেনের প্রধানমন্ত্রীর ফোন, যা নিয়ে কথা হলো

4

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে টেলিফোন করেছেন ইউক্রেনের প্রধানমন্ত্রী ড্যানিস সেমিহাল।

সোমবার (১৯ জুন) প্রধানমন্ত্রীর সহকারী প্রেস সচিব এবিএম সরওয়ার-ই-আলম সরকার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

ফোনালাপে সেমিহাল বাংলাদেশ ও ইউক্রেনের মধ্যে বিদ্যমান দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক নতুন উচ্চতায় নিয়ে যেতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে কাজ করার বিষয়ে তার দেশের সরকারের অবস্থান পুনর্ব্যক্ত করেছেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইউক্রেন থেকে খাদ্য শস্যের নির্বিঘ্ন পরিবহনের ব্যাপারে আশা প্রকাশ করে বলেন, ‘বাংলাদেশ চায় বিদ্যমান যুদ্ধের অতি দ্রুত অবসান হোক- যেন বিশ্বের ‘ব্রেড বাস্কেট’ খ্যাত ইউক্রেন থেকে খাদ্যশস্য সহজেই খাদ্য ঘাটতির দেশগুলোতে পাঠানো যায়।’

আলাপকালে প্রধানমন্ত্রী জাতিসংঘের নেতৃত্বে ‘কৃষ্ণ সাগর শস্য উদ্যোগ’-এর প্রতি পূর্ণ সমর্থন জানান এবং এ উদ্যোগের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সব পক্ষকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান। তিনি এ মহতী উদ্যোগ অব্যাহত রাখার বিষয়ে দৃঢ় আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

ডেনিস সেমিহাল আন্তর্জাতিক অঙ্গনে, বিশেষ করে জাতিসংঘ এবং অন্যান্য ফোরামে ইউক্রেনের পাশে দাঁড়ানোর জন্য প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ করেন।

এ প্রসঙ্গে শেখ হাসিনা বলেন, ‘বাংলাদেশ জাতিসংঘ সনদের উদ্দেশ্য এবং নীতি অনুযায়ী সার্বভৌমত্ব এবং আঞ্চলিক অখণ্ডতার প্রতি শ্রদ্ধাশীল।’

অন্য খবর  জম্মু-কাশ্মিরে বিচ্ছিন্নতাবাদী গোষ্ঠীর গুলিতে নিহত ৩ সেনাসদস্য

তিনি সব বিরোধের শান্তিপূর্ণ নিষ্পত্তিকে সমর্থন করেন এবং যা সব ক্ষেত্রে সার্বজনীনভাবে পালিত হওয়া আবশ্যক বলে উল্লেখ করেন। চলমান ইউক্রেন যুদ্ধে সাধারণ জনগণ ও শিশুদের মৃত্যুতে গভীর দুঃখ প্রকাশ করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমরাও যুদ্ধ থেকে উঠে এসেছি। যুদ্ধ কোনো পক্ষের জন্যই মঙ্গল বয়ে আনে না। বাংলাদেশ শান্তির নীতিতে বিশ্বাসী।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাদের কথোপকথন শেষে ডেনিস সেমিহালের সুস্বাস্থ্য কামনা করেন এবং ইউক্রেনের জনগণের কল্যাণ প্রার্থনা করেন।

 

আপনার মতামত দিন