প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণির বৃত্তি পরীক্ষা ৩০ ডিসেম্বর (সংশোধিত)

98

দেশের সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণির বৃত্তি পরীক্ষা, ২০২২ সালের ডিসেম্বর মাসের ৩০ তারিখ সকাল ১০টা থেকে ১২ টা পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হবে। নতুন এক সিদ্ধান্তে ২৯ তারিখের পরিবর্তে বৃত্তি পরীক্ষা ৩০ তারিখে অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া বৃত্তি পরীক্ষার্থীর সংখ্যা বাড়িয়ে  ২০% করা হয়েছে।

সংশোধিত সময়সূচি অনুসারে, প্রাথমিকের বৃত্তি পরীক্ষা ৩০ ডিসেম্বর ২০২২ খ্রি. তারিখ শুক্রবার সকাল ১০ টায় অনুষ্ঠিত হবে। ২৭ ডিসেম্বর পরীক্ষার প্রবেশ পত্র বিতরণ করা হবে। বৃত্তি পরীক্ষায় শিক্ষার্থীদের ৫০/= টাকা ফি দিতে হবে।

উপজেলা সদরে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বৃত্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। প্রাথমিক বৃত্তিতে ২০ শতাংশ শিক্ষার্থী অংশ নিতে পারবে। এর আগে ১০ শতাংশের কথা বলা হয়েছিলো। সবশেষ ২০ ডিসেম্বর, প্রাথমিক বৃত্তি পরীক্ষা-২০২২ এর প্রশ্নের কাঠামো সম্পর্কে সুস্পষ্ট ধারণা দিয়েছে প্রাথমিক অধিদপ্তর।

প্রাথমিক বৃত্তি ২০২২ এর প্রশ্নের কাঠামো ও মান বন্টন সম্পর্কে সাধারণ নির্দেশীকা জারি করেছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর।
২০ ডিসেম্বর তারিখে প্রকাশিত সবর্শেষ নির্দেশনায়, বিষয় ভিত্তিক বৃত্তি পরীক্ষার প্রশ্নের কাঠামো নিয়ে বিস্তারিত তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে।

প্রাথমিক বৃত্তি পরীক্ষায় ১০০ নম্বরের পরীক্ষার হবে। বাংলা, ইংরেজী, গণিত ও বিজ্ঞান বিষয়ের পরীক্ষা হবে। দুই ঘন্টার মধ্যে এসব বিষয়ের উত্তর দিতে হবে।

অন্য খবর  ৫ জন নারী পাচ্ছেন ‘ রোকেয়া পদক ২০২২’

শিক্ষার্থীকে প্রশ্নপত্র সম্বলিত বুকলেট সরবরাহ করা হবে। বুকলেট এর নির্ধারিত জায়গায় টিক চিহ্ন এবং প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে লিখে সকল প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে। পৃথকভাবে উত্তরপত্র সরবরাহ করা হবে না।

বাংলা, প্রাথমিক গণিত, ইংরেজি ও প্রাথমিক বিজ্ঞান এই চারটি বিষয়ের প্রতিটির জন্য ২৫ নম্বর করে সর্বমোট ১০০ নম্বরের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

প্রতি বিষয়ে ১৫টি বহুনির্বাচনী প্রশ্ন থাকবে যার প্রতিটি প্রশ্নের মান ১ নম্বর। প্রতি প্রশ্নের চারটি অপশনের মধ্যে সঠিক উত্তরটিতে টিক চিহ্ন দিতে হবে। সঠিক উত্তর নির্বাচনে একাধিক অপশনে টিক চিহ্ন দেওয়া যাবেনা। একাধিক অপশনে টিক চিহ্ন দেওয়া হলে এ প্রশ্নের উত্তরের জন্য নির্ধারিত নম্বর প্রদান করা হবে না।

বাংলা বিষয়ে দুইটি অনুচ্ছেদ দেওয়া থাকবে। দুইটি অনুচ্ছেদ থেকে ৪টি করে ৮টি বহুনির্বাচনী প্রশ্ন থাকবে এবং অপর ৭টি বহুনির্বাচনী প্রশ্ন সমগ্র পাঠ্যপুস্তক হতে থাকবে । একটি রচনামূলক প্রশ্ন থাকবে যার নম্বর ১০ ।

গণিত বিষয়ে সমগ্র পাঠ্যপুস্তক হতে ১৫টি বহুনির্বাচনী প্রশ্ন থাকবে। দুটি সমস্যা সমাধানমূলক প্রশ্ন থাকবে। প্রতিটির মান ৫ নম্বর করে মোট ১০ নম্বর। ইংরেজি বিষয়ে সমগ্র পাঠ্যপুস্তক হতে ১৫টি বহুনির্বাচনী প্রশ্ন থাকবে। একটি বিষয়ে অনুচ্ছেদ লিখতে হবে। যার মান ১০ নম্বর।

অন্য খবর  জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় দিবস পালন করলো দোহার-নবাবগঞ্জ ছাত্রকল্যাণ পরিষদ, জবি

প্রাথমিক বিজ্ঞান বিষয়ে সমগ্র পাঠ্যপুস্তক হতে ১৫টি বহুনির্বাচনী প্রশ্ন থাকবে। দুটি রচনামূলক প্রশ্ন থাকবে। প্রতিটির মান ৫ নম্বর করে মোট ১০ নম্বর।

আপনার মতামত দিন