উত্তর জয়পাড়ায় বসতঘরে আগুনে সর্বস্ব পুড় গিয়েছে শেখ নজরুলের

81
বসতঘরে আগুনে

ঢাকার দোহার উপজেলার পৌরসভা ৩নং ওয়ার্ড এর কুঠিবাড়ি এলাকায় মধ্যেপ্রাচ্যের দেশ কাতার থেকে ফেরত আসা প্রবাসী শেখ নজরুল ইসলাম এর বসতঘরে পেট্রোল ঢেলে অগুন দিয়েছে দুর্বৃত্তরা।

শুক্রবার (১২ এপ্রিল) দিবাগত রাতে দুর্বৃত্তদের দেয়া আগুনে ঘরে থাকা মোটরসাইকেল, টিভি, ফ্রিজ, আলমারী, শোকেস ও নগদ টাকা বিভিন্ন মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে গেছে যার আনুমানিক ১২ লক্ষ টাকার মত বলে দাবী ক্ষতিগ্রস্থ শেখ নজরুলের।

শেখ নজরুল ইসলাম বলেন, ঈদ উপলক্ষে আমি আমার বসতঘর তালাবদ্ধ করে পরিবারের সবাইকে নিয়ে আমার শুশুর বাড়িতে বেড়াতে গেলে ওইদিন দিবাগত রাতেই কে বা কারা আমার বসত ঘরের ভেতর পেট্রোল ঢেলে আগুন দিয়ে আমার ঘরে থাকা মোটরসাইকেল, টিভি, ফ্রিজ, আলমিরা, শোকেস ও নগদ টাকাসহ প্রায় আনুমানিক ১২ লক্ষ টাকার বিভিন্ন মালামাল পুড়িয়ে ছাই করে ফেলেছে। আমি প্রশাসনের কাছে এর ন্যায্য বিচার চাই।

তিনি কান্নাজড়িত কন্ঠে বলেন, আমি কাতার প্রবাসী ছিলাম। মাস খানেক আগে আমি কাতার থেকে একেবারের মত ফেরত এসেছি। আমার যা সম্বল ছিল তা সবই পুড়িয়ে ছাই করে দিয়েছে। আমি এখন কি করে খাব, কেমন করে বাচঁবো। আমাকে একবারে নিঃস্ব করে দিয়েছে।

অন্য খবর  ঢাকা-১ আসন পুনরুদ্ধার করে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে উপহার দিতে চাই; নিউজ৩৯ এর সাক্ষাৎকারে আবু আশফাক

ঘরে আগুন দেওয়ার আগে পাশেই থাকা ক্ষতিগ্রস্ত শেখ নজরুল ইসলামের বড় ভাই শেখ আলীর ঘর বাহির থেকে তালা দিয়ে আটকে দেয় দুর্বৃত্তরা। যেন কোন সহযোগিতার জন্য ঘর থেকে কেউ বের হতে না পারে। তার প্রতিবেশী আল আমিনের ঘরে দুর্বিত্তদের আনাগোনার চিহ্ন পাওয়া গিয়েছে যদিও কিছু নেয় নি। ধারণা করা হচ্ছে সবাই যখন তালা ভাঙা ও আগুন নেভানো নিয়ে ব্যস্ত সেই সময় দুর্বিত্তরা আল আমিনের ঘর খোলা পেয়ে সেখানে প্রবেশ করে।

খবর পেয়ে ফায়ার বিগ্রেড এসে আগুন নেভায়। তাদের পানি শেষ হয়ে গেলে কাছের খাল থেকে পানি নিয়ে আগুন নেভানোর কাজ করা হয়।

দোহার পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ড কমিশনার আব্দুস সালাম সুকুর বলেন, এ ঘটনার খবর পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে আমি ঘটনাস্থলে আসি। এটা খুবই ন্যাককারজনক একটি ঘটনা। এ ঘটনার সাথে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করছি।

পরে ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন দোহার থানা পুলিশ। এ ঘটনায় দোহার থানায় একটি মামলা দায়ের করেন ক্ষতিগ্রস্ত শেখ নজরুল ইসলাম।

এ বিষয়ে দোহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ হারন-অর-রশিদ বলেন, এ ঘটনার খবর পেয়েই তাৎক্ষনিক ভাবে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন দোহার থানা পুলিশ। এ ঘটনায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। দ্রুত দোষীদের আইনের আওতায় আনা হবে বলে জানান এ পুলিশ কর্মকর্তা।

আপনার মতামত দিন