স্নাতক পরীক্ষা দেয়া হলো না কেয়ার

809
স্নাতক পরীক্ষা দেয়া হলো না কেয়ার

ঢাকা জেলার দোহার উপজেলার দক্ষিণ শিমুলিয়া গ্রামে নিজ বাড়িতে বেড়ে উঠা সানজিদা আক্তার কেয়া। ইচ্ছে ছিলো গ্রাজুয়েশন সম্পন্ন করে, পরিবারের হাল ধরবেন। বাবা মা’র স্বপ্ন ছিলো মেয়ে একদিন অনেক বড় হবে। ভর্তি হয়েছিলো পদ্মা কলেজে হিসাববিজ্ঞান বিভাগে। সুস্থ থাকলে, হয়ে যেতো স্নাতক পাশ। কিন্তু স্রষ্টার ইচ্ছ্বে ছিলো ভিন্ন। পৃথিবীর সবচেয়ে কঠিন কাজ, আজ বাবার কাধে উঠলো কেয়াকে বহনকারী লাশের খাটিয়া, স্নাতক পরীক্ষা দেয়া হলো না কেয়ার।

কেয়া পদ্মা সরকারি কলেজ এর ২০১৬-২০১৭ সেশনের অনার্স কোর্সের হিসাববিজ্ঞান বিভাগের অত্যন্ত মেধাবী ও বিনয়ী ছাত্রী ছিলেন। অনার্স চতুর্থ বর্ষ ফাইনাল পরীক্ষায় দুইটি বিষয়ে অংশগ্রহণ করার পরে শারীরিক অসুস্থতার জন্য অবশিষ্ট পরীক্ষা দিতে পারেনি। পরে জানা যায়, তিনি ব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত।

১৭ জুন, শুক্রবার সকালে ব্লাড ক্যান্সারে কেয়া ইন্তেকাল করেন (ইন্না-লিল্লাহে ওয়া ইন্না ইলাহি রাজিউন)। কেয়ার মৃত্যুতে তার এলাকাসহ পদ্মা কলেজ পরিবারে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

ছাত্রী কেয়ার মৃত্যুতে পদ্মা সরকারি কলেজ পরিবার এর পক্ষ থেকে গভীর শোক ও সমবেদনা জানানো হয়। পরম করুনাময় আল্লাহর নিকট মরহুমার আত্মার মাগফেরাত কামনা করা হয়।

অন্য খবর  দোহারে গ্রাহকের মৃত্যুর ইন্সুরেন্স টাকা হস্তান্তর

সেই সাথে অধ্যক্ষ মোঃ জালাল হোসেন পরিবারের সদস্যদের জন্য সমবেদনা জানান। সর্ব শক্তিমান আল্লাহ যেন ওনাদের প্রিয় সন্তানের মৃত্যুর শোক সইবার শক্তি দেন এবং কেয়াকে জান্নাতুল ফেরদৌসের অধিকারী করেন, সে দোয়া করেন।

মন্তব্য