সাকিবের ব্যাটে কলকাতার জয়

নানা জল্পনা কল্পনার পর সাকিব আল হাসান ঠিকই খেলেছেন এবং তার হাত ধরেই এসেছে কলকাতার জয়। হারলে বিদায় নিতে হবে টুর্নামেন্ট থেকে এমন সমীকরণ নিয়ে আইপিএলে সোমবার রাতে শারজায় এলিমিনেটর ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছে রয়াল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরু ও কলকাতা নাইট রাইডার্স।

10

news39.net: নানা জল্পনা কল্পনার পর সাকিব আল হাসান ঠিকই খেলেছেন এবং তার হাত ধরেই এসেছে কলকাতার জয়।

হারলে বিদায় নিতে হবে টুর্নামেন্ট থেকে এমন সমীকরণ নিয়ে আইপিএলে সোমবার রাতে শারজায় এলিমিনেটর ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছে রয়াল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরু ও কলকাতা নাইট রাইডার্স।

শুরুতে হাতে বল নিয়ে কেকেআরের ক্যারিবীয় স্পিনার সুনীল নারিন ৪ ওভারে ২১ রান দিয়ে শিকার করেন চারটি উইকেট।  নারিনের এই বোলিং নৈপুণ্যে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৭ উইকেটে ১৩৮ রানের লো স্কোরিং টার্গেট ছুড়ে দিতে পারে ব্যাঙ্গালুরু।

আর ব্যাট হাতে নেমে  ব্যাঙ্গালুরুর মামুলী টার্গেট ২ বল বাকি থাকতে পেরিয়ে গেছে কলকাতা।

৪ উইকেটে ব্যাঙ্গালুরুকে হারাল কেকেআর।এ জয়ে কলকাতা চলে গেছে আইপিএলের দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে। সেখানে অপেক্ষায় দিল্লি ক্যাপিটালস।

আর হেরে বিদায় নিয়ে শেষ হলো কোহলির আইপিএল অধিনায়কত্বের অধ্যায়।

ম্যাচে জয়সূচক রানটি এসেছে সাকিব আল হাসানের ব্যাট ছুঁয়ে। শেষ ওভার প্রয়োজন ছিল ৭ রানের। আর ওভারের প্রথম বলটিই বাউন্ডারি হাঁকিয়ে জয় অনেকটা নিশ্চিত করেন সাকিব।

মোহাম্মাদ আশরাফুল যে স্টাইলে ব্যাট করতেন ঠিক তেমন একটি শর্টে ৪ রান হয়। আর এতেই ম্যাচে নিয়ন্ত্রণ নেয় কলকাতা।

অন্য খবর  ব্রাজিল না আর্জেন্টিনা?

ড্যানিয়েল ক্রিশ্চিয়ান ও ম্যাচের শেষ ওভারের চতুর্থ বলটি ঠুকে দিয়ে অধিনায়ক মরগানের সঙ্গে দৌড়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছে যান সাকিব।

৫ বলে দরকার পড়ে ৩ রানের। পর পর দুই বলে দুটি সিঙ্গেলস আসলে স্কোর লেভেল হয়। ৪র্থ বলে আরো একটি সিঙ্গেল নিয়ে ম্যাচ জেতান বাংলাদেশি অলরাউন্ডার।

বেশি বল খেলার সুযোগ পাননি সাকিব। ৬ বলে খেলে অপরাজিত ৯ রান করেছেন। অধিনায়ক মরগান অপরাজিত ছিলেন ৫ রানে।

মন্তব্য