দোহারে নির্মল রঞ্জন গুহের ২য় মৃত্যু বার্ষিকী পালিত

30

বাংলাদেশ আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক সভাপতি,দোহারের সন্তান বাবু নির্মল রঞ্জন গুহ এর মৃত্যুর দুই বছর পূর্ণ হলো আজ।
তিনি ২৯ জুন ২০২২ সালে সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। তাঁর বয়স হয়েছিল ৫৮ বছর।মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী ও দুই ছেলে রেখে গেছেন।

বুকের ব্যাথা অনুভূত হলে গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় তাঁকে প্রথমে ১২ জুন ২০২২ সালে দিবাগত রাতে রাজধানীর শ্যমলীর বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে নেওয়া হয় লাইফ সাপোর্টে। হার্টে দুটি ব্লক ধরা পড়লে হার্টে রিং ও বসানো হয়। তাতেও অবস্থার উন্নতি হয়নি।

পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ১৬ জুন ২০২২ সালে দুপুরে তাঁকে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে সিঙ্গাপুরের বিখ্যাত মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে নেওয়া হয়। এরপর থেকে সেখানেই চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি। এর আগেও তিনি হার্টের সমস্যায় প্বার্শবর্তী দেশ ভারতে চিকিৎসা নিয়েছিলেন।

উল্লেখ্য,২০১৯ সালের ২৫ নভেম্বর কেন্দ্রীয় আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের নতুন সভাপতি নির্বাচিত হন বাবু নির্মল রঞ্জন গুহ। একই কমিটির সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন আফজালুর রহমান।

তার ২য় মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে শনিবার তার গ্রামের বাড়ি ঢাকা জেলার দোহার উপজেলায় তার নিজ বাড়িতে বিভিন্ন নেতা কর্মী ও সুধীজনের অংশগ্রহণে পালিত হয়েছে। এ সময় তার রাজনৈতিক দর্শন,প্রজ্ঞা,ত্যাগ ও মানুষের প্রতি অসীম ভালোবাসার বহিঃপ্রকাশের বিভিন্ন দিক নিয়ে আলোচনা করা হয়।
উল্লেখ্য,
তার রাজনৈতিক জীবনে , ছাত্রলীগের হাত ধরে পথচলা শুরু করেন নির্মল রঞ্জন গুহ। ছাত্রজীবনে তিনি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।পরে মানিকগঞ্জের সরকারি দেবেন্দ্র কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক, মানিকগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন।নিজ দক্ষতা ও নিষ্ঠার সাথে পরবর্তীতে ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও সহ-সভাপতির দায়িত্ব ও পালন করেন। নির্মল রঞ্জন গুহ ঢাকা জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের প্রতিষ্ঠাকালীন আহ্বায়কেরও দায়িত্বে ছিলেন।

আপনার মতামত দিন