আওয়ামী লীগ ফের ক্ষমতায় আসলে আড়িয়ল বিলে বিমানবন্দর হবে: মান্নান খান

258

“আগামী নির্বাচনে যদি আমি এমপি এবং শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী হয়, তাহলে আমি কথা দিচ্ছি যে  আড়িয়ল বিলে বিমানবন্দর হবে’ বলে ঘোষণা দিয়েছেন গৃহায়ন ও গণপূর্ত প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট আব্দুল মান্নান খান। শনিবার তিনি দোহার উপজেলার কয়েকটি উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগীতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে তিনি এ ঘোষণা দেন। তিনি এমদাদ আলী উচ্চ বিদ্যালয়, ইসলামাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়, আবদুল হামেদ উচ্চ বিদ্যালয়, কার্তিকপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে বক্তব্য রাখেন তিনি।

প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, “দোহার ও নবাবগঞ্জ দুই উপজেলার অধিকাংশ স্কুলে নতুন ভবন নির্মাণের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এরই মধ্যে দোহার উপজেলার ৬০টির উচ্চ বিদ্যালয়ের মধ্যে ৩৫টির কাজ শেষ হয়েছে। বাকিগুলো প্রক্রিয়াধীন। আমাদের উপজেলার কোনো শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বাজেট বঞ্চিত থাকবে না।” শিক্ষার্থীরা পড়াশোনা, খেলাধুলা, সঙ্গীত, সমাজসেবা, সাহিত্যসহ যে কোনো সেক্টরে ভালো করলে তাদেরকে পুরস্কৃত করার কথাও বলেন তিনি।

তিনি বলেন, “আগামী নির্বাচনে আমি এমপি হলে ও শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী হলে আড়িয়ল বিলে বিমানবন্দর হবে। কিছু স্বার্থান্বেষী মহল এই বিমানবন্দরের কাজ বাধাগ্রস্ত করেছে। অথচ আড়িয়ল বিলে বিমানবন্দর হলে দোহার নবাবগঞ্জ মানুষের জীবনযাত্রার মান উন্নত হতো। এমনকি আমাদের প্রবাসী সন্তানেরা বিদেশ থেকে সরাসরি গ্রামে আসতো। এতে পৃথিবীর মানুষ এ এলাকায় আসা যাওয়া করতো। বিশ্বব্যাপী এলাকার নাম ছড়িয়ে পড়তো।”

অন্য খবর  দোহারে মাদক ব্যবসায়ীর সাজা

মান্নান খান বলেন, “শান্তিতে বসবাসের জন্য আমরা সব করেছি। সারাদেশে আমাদের সরকার কাজ করছে। খরা, অভাব, মঙ্গা, সন্ত্রাসের দেশকে বিশ্বে উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে তুলে ধরেছে সরকার। বিশ্বব্যাপী বাংলাদেশ প্রশংসিত হয়েছে। সরকার বিভিন্ন সেক্টরে উন্নয়ন করে দেশকে এগিয়ে নিচ্ছে। তাই আবার আওয়ামী লীগকে ভোট দিয়ে উন্নয়ন অব্যাহত রাখতে হবে।”

দেশের কৃষকদের ব্যাপারে তিনি বলেন, “গুলশান, বনানী বারিধারা ও শহরের ধনীদের জন্য বিদ্যুৎ কমিয়ে সারারাত গ্রামে কৃষকদের জন্য বিদুৎ সরবরাহ করা হচ্ছে। এখন সারের জন্য জীবন দিতে হয় না। সব জায়গায় বাম্পার ফলন হয়। মানুষের ভাগ্য পরিবর্তনে অনেক কাজ করছে সরকার।”

তিনি বলেন, “৪০ লাখ মেট্রিক টন খাদ্য ঘাটতির বাংলাদেশে এখন কোনো খাদ্য ঘাটতি নেই। আগে না খেয়ে মানুষ মারা যেত। এখন আমরা খাদ্যে উদ্বৃত্ত উৎপাদনকারী দেশ। এটা বর্তমান সরকারের অবদান।”

দোহারবাসীর উদ্দেশে তিনি বলেন, “নির্বাচনের আগে যেসব প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলাম তা বাস্তবায়ন করেছি। আমি বলেছিলাম, আপনারা শেখ হাসিনা ও নৌকাকে ভোট দিন আমি আপনাদের সম্মান ও মর্যাদা দেবো। আমি আমার কথা রাখতে কাজ করছি।”

অন্য খবর  নবাবগঞ্জে ছাত্রলীগের আনন্দ মিছিল

প্রতিমন্ত্রী মান্নান খানের সহধর্মিনী হাসিনা মান্নান বলেন, “শিক্ষার্থীদের দেশপ্রেমিক হিসেবে সুন্দরভাবে গড়ে তুলতে হবে। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্ন ও সোনার বাংলা বাস্তবায়নে আগামীর নেতৃত্ব গড়ে তুলতে হবে।”

মান্নান খানের সঙ্গে এসময় উপস্থিত ছিলেন ইডেন কলেজের সাবেক ভিপি ও শিক্ষানুরাগী সৈয়দা হাসিনা মান্নান, দোহার উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান ও থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলী আহসান খোকন শিকদার, ভাইস চেয়ারম্যান শেখ আনারকলি পুতুল, দোহার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আল আমীন, ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ফজলুল হক, বিশিষ্ট সমাজসেবক ও শিক্ষাবিদ এম এ কাশেম, উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মুন্নি হোসেন, আওয়ামী লীগ নেতা মোতালেব হোসেন খান ও সাবেক ছাত্রলীগ নেতা আসাদুজ্জামান দীপু প্রমুখ।

আপনার মতামত দিন