দোহারে ধর্ষণের চেষ্টা

700

আবার দোহারে ধর্ষণের চেষ্টা এর অভিযোগ উঠেছে। মাকে আটকে রেখে ১২ বছরের শিশু কন্যাকে ধর্ষণের চেষ্টা করে স্থানীয় আলমগীর ওরফে চোরা আলমগীর সহ স্থানীয় তিন বখাটে। দোহারের মেঘুলা বাজারের রানীপুরের ইউনুসের বাড়িতে রবিবার রাত ৩টার দিকে এই ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, রবিবার রাত তিনটার দিকে ইউনুসের বাড়ির ভাড়াটিয়া হালিমা বেগমের ঘরে দরজা ভাঙ্গে প্রবেশ করে চোরা আলমগীর সহ স্থানীয় তিন বখাটে। এসময় হালিমা বেগমকে আটকে রেখে তার মেয়েকে জোর পূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করে তারা। এসময় তাদের চিৎকারে বাড়ির অন্য ভাড়াটিয়ারা এগিয়ে আসলে পালিয়ে যায় চোরা আলমগীর ও তার সঙ্গীরা। এসময় হালিমা বেগমকে এই ঘটনা প্রকাশ করলে মেরে ফেলার হুমকি দেয় আলমগীর।

চোরা আলমগীর মধুর চর গ্রামের সোবহান মোল্লার ছেলে। তার বিরুদ্ধে দোহার থানায় খুন, ডাকাতি, ছিনতাই সহ একাধিক মামলা আছে। ধার থানার এস আই হারুনর রশিদ নিউজ৩৯কে জানান, ঘটনার তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

মন্তব্য