সালমা ইসলাম

 

জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য অ্যাডভোকেট সালমা ইসলাম এমপি বলেছেন, দারিদ্র্য বিমোচন করে আপনাদের মুখে হাসি ফোটাতে চাই। যেন আপনারাই মানুষকে সাহায্য করতে পারেন। আল্লাহ যেন সেই তৌফিক দেন।

এ অঞ্চলের অসহায় দরিদ্র মানুষের চোখেমুখে আনন্দের ঝিলিক দেখতে আমার চেষ্টা অব্যাহত থাকবে। সোমবার সকালে নবাবগঞ্জের বান্দুরা ইউনিয়নের নতুন বান্দুরা বটতলায় দুস্থ নারী-পুরুষের মাঝে শাড়ি ও লুঙ্গি বিতরণের সময় তিনি এ কথা বলেন। একই দিন তিনি নয়নশ্রী, বারুয়াখালী, জয়কৃষ্ণপুর ও শিকারীপাড়া ইউনিয়নে কাপড় বিতরণ করেন।

আরও বলেন, আমার ব্যক্তিগত চাওয়া-পাওয়ার কিছু নেই। আমার জীবনের আগামী দিনগুলোয় আপনাদের কল্যাণে সুখে ও দুঃখে পাশে থাকতে চাই। আপনাদের উন্নয়নসহ দোহার ও নবাবগঞ্জবাসীর পাশে ছায়া হয়ে থাকতে চাই। এ জন্য আপনাদের সার্বিক সহযোগিতা ও সহমর্মিতা প্রয়োজন। নির্বাচন এগিয়ে আসছে আপনাদের সজাগ ও সচেতন হতে হবে। অনেকেই আপনাদের কাছে আসবে ভোটের জন্য। আপনাদের বুঝে সিদ্ধান্ত নিতে হবে।

শাড়ি-লুঙ্গি নিতে আসা অপেক্ষমাণ নারী-পুরুষের উদ্দেশে সাবেক প্রতিমন্ত্রী বলেন, আপনার ছেলে ও মেয়েকে লেখাপড়া শিখিয়ে আত্মনির্ভরশীল করে গড়ে তুলুন। তাদেরকে ধর্মীয় শিক্ষা দিন তাহলে সমাজে অপরাধ প্রবণতাসহ বিভিন্ন সামাজিক ব্যাধির ভয়াবহতা থেকে রক্ষা পাবেন। অভাব ও দুঃখ-কষ্ট দূর হবে।

অন্য খবর  জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহ ২০১৮ উপলক্ষ্যে ঢাকার দোহারে আবৃত্তি ও চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা

আপনার আমার প্রিয় দোহার-নবাবগঞ্জের মানুষ নিরাপদ ও শান্তিতে জীবন পরিচালনা করতে পারবে। আমি চাই, আমার নির্বাচনী এলাকার মানুষ ভালো থাকুক। যাতে কারও প্রতি তারা নির্ভরশীল না হয়। তিনি সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত ৫টি ইউনিয়নের প্রতিটিতে সহস্রাধিক শাড়ি ও লুঙ্গি বিতরণ করেন। এসব অনুষ্ঠানে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানসহ জাতীয় পার্টির নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

Comments

comments