প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শের পর খুলছে ফেসবুক

1008

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে আলোচনা করে প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ নিয়েই যথাসময়ে ফেসবুক খুলে দিতে বিটিআরসিকে নির্দেশ দেবে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। তবে কতদিন বন্ধ থাকবে তা স্পষ্ট করেনি মন্ত্রণালয়।

বিটিআরসির একটি সূত্র জানায়, সরকারের উচ্চ পর্যায়ের নির্দেশনা অনুসারে ফেসবুক বন্ধ করা হয়েছে। ওই পর্যায় থেকে নতুন নির্দেশনা না আসলে ফেসবুক খুলবে না।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম বলেছেন, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্তের পরই ফেসবুক, ভাইবারসহ যেসব সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম বন্ধ রযেছে তা খুলে দেয়া হবে। কবে নাগাদ এগুলো খোলা হবে- সে বিষয়ে নিশ্চিত করে কিছু বলেননি তারানা হালিম।

এদিকে সামাজিক যোগাযোগের জনপ্রিয় মাধ্যম ফেসবুক, ভাইবার কবে নাগাদ খুলে দেয়া হচ্ছে তা নিয়েই চলছে জল্পনা-কল্পনা। ফেসবুক ব্যবহারকারীদের মধ্যে এনিয়ে উৎকণ্ঠার শেষ নেই।

ফেসবুক বন্ধ নিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, ফেসবুক বন্ধ রাখায় সন্ত্রাসীরা বাধ্য হয়ে মোবাইল ফোনে আলাপ করছে। এতে সন্ত্রাসীদের চিহ্নিত করা সহজ হচ্ছে। শিগগিরই ফেসবুক খুলে দেয়া হবে কি না জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমরা এটি নিয়ে বসবো। আলোচনা করে তারপর ব্যবস্থা নেব। আমি আগেই বলেছি ফেসবুক সাময়িকভাবে বন্ধ রাখা হয়েছে।

অন্য খবর  সুখী থাকার জন্য ফেইসবুক ত্যাগ করুন

এদিকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সবুজসংকেত পেলেই ফেসবুক, ভাইবার, হোয়াটসঅ্যাপসহ সামাজিক যোগাযোগের কয়েকটি মাধ্যম খুলে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তিবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

গত ১৮ নভেম্বর যুদ্ধপরাধের দায়ে ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী এবং জামায়াত নেতা আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদের চূড়ান্ত রায় ঘোষণার পর আচমকাই বন্ধ করে দেয়া হয় ইন্টারনেট, ফেসবুক, ভাইবার, হোয়াটস অ্যাপসহ সামাজিক যোগাযোগের বেশ কয়েকটি মাধ্যম। ঘণ্টা খানেক বাদে ইন্টারনেট সেবা চালু হলেও ফেসবুকসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো কবে খুলে দেয়া হবে তা এখনও নিশ্চিত করে বলতে পারেনি সরকারের সংশ্লিষ্টরা।

Comments

comments