দোহার-নবাবগঞ্জে টেলিটক সংযোগ বিচ্ছিন্ন

163

নিউজ৩৯♦ ঢাকার পাসের দুই উপজেলা দোহার ও নবাবগঞ্জ উপজেলায় সরকারি টেলিযোগাযোগ প্রতিষ্ঠান বিটিসিএল ও টেলিটক সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়েছে। দোহার-নবাবগঞ্জের টেলিটকের নেটওয়ার্কের দায়িত্বে থাকা কেরানীগঞ্জ বিভাগীয় সার্কেল নিউজ৩৯কে সংযোগ বিচ্ছিন্ন হওয়ার খবর নিশ্চিত করেছে। সংযোগ চালু হতে আরো ৪ দিন সময় লাগবে বলে জানিয়েছে কেরানীগঞ্জ বিভাগীয় প্রকৌশলী।

বিটিসিএল কেরানীগঞ্জ অফিসে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, কেরানীগঞ্জ উপজেলা কোনাখোলা এলাকা থেকে সংযোগ বিচ্ছিন্ন হওয়ায় দোহার, নবাবগঞ্জ এলাকার বিটিসিএল ও টেলিটক সংযোগ পাচ্ছেন না গ্রাহকরা। এতে ভোগান্তিতে পড়েছেন এ দুই উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন, সরকারি-বেসরকারি অফিস, ব্যাংক, বীমাসহ প্রায় ২শ বিটিসিএল ও অন্তত ৩ হাজার টেলিটক গ্রাহক।

মূলত ৭ দিন আগে কেরানীগঞ্জ উপজেলার কোনাখোলা এলাকা থেকে মূল সংযোগে (লিংক) সমস্যা দেখা দেয়ায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে বলে জানা যায়।

খোঁজ নিতে সোমবার বেলা ১টার দিকে নবাবগঞ্জ টেলিফোন এক্সচেঞ্জ ভবনে গেলে প্রধান ফটকে তালা ঝুলতে দেখা যায়। তখনও প্রধান ফটকের বৈদ্যুতিক বাতি জ্বলছিল। এ সময় খোঁজ করে কাউকে পাওয়া যায় নি। আশপাশের বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, অফিসে নুরুল ইসলাম নামে এক লোক পরিবারসহ থাকতেন। গত ৭ দিন আগে তিনি বাড়িতে গেছেন। তখন থেকে ফটকের বাতিটি জ্বলছে।

এ বিষয়ে কেরানীগঞ্জ বিভাগীয় প্রকৌশলী সাঈদ মাহমুদ বলেন, আমাদের লোক স্বল্পতা রয়েছে। টেলিটকের প্রকৌশলীরা কাজ করছেন। আগামী বুধ-বৃহস্পতিবারের মধ্যে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হতে পারে।

দোহার উপজেলা সদরের টেলিকমিউনিকেশন ব্যবসায়ী জসিম উদ্দিন জানান, এতে তার ব্যবসার ক্ষতি হচ্ছে। বিশেষ করে দেশ-বিদেশে ফ্যাক্স করা গ্রাহকরা ভোগান্তিতে পড়ছেন।

Comments

comments