২০১৯ সালে ‘ঢাকা অ্যাটাক ২’

ঢাকা অ্যাটাক-এর পোস্টাররেকর্ডের পর রেকর্ড করে চলেছে দীপঙ্কর দীপনের ছবি ‘ঢাকা অ্যাটাক’। প্রথম দিনে চার কোটি টাকার টিকিট বিক্রির পর এখনও সেই ধারাবাহিকতা ধরে রেখেছে ছবিটি। এদিকে পরিচালক জানালেন, শিগগিরই শুরু হচ্ছে ছবিটির পরবর্তী কিস্তির কার্যক্রম। ২০১৯ সাল নাগাদ মুক্তি পাবে ‘ঢাকা অ্যাটাক এক্সট্রিম’।

দীপঙ্কর দীপন বললেন, ‘‘ঢাকা অ্যাটাক এক্সট্রিম’ বা ‘ঢাকা অ্যাটাক-টু’ আসবে, এটা নিশ্চিত। ছবির অভিনয়শিল্পীদের মধ্যে খুব একটা পরিবর্তন হবে না। তবে এটি আরও এক্সট্রিম মাত্রায় হবে।’

গত ৬ অক্টোবর সারাদেশে ১২২টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে ‘ঢাকা অ্যাটাক’। এর মধ্যে বেশ কয়েকটি প্রেক্ষাগৃহের মালিক ও কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সবখানেই ‘ঢাকা অ্যাটাক’ দেখতে দর্শকের ঢল নেমেছে। রাজধানীর স্টার সিনেপ্লেক্স, বলাকা, শ্যামলীসহ বেশ কয়েকটি প্রেক্ষাগৃহ হাউসফুল থাকায় টিকিট না পেয়ে ফিরে যেতে হয়েছে অনেককে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছবিটি প্রসঙ্গে ভূয়সী প্রশংসা করছেন দর্শকরা। গত বছর মুক্তিপ্রাপ্ত ‘আয়নাবাজি’র ব্যবসায়িক সাফল্যকে ‘ঢাকা অ্যাটাক’ ছাড়িয়ে যাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

‘ঢাকা অ্যাটাক’কে বলা হচ্ছে দেশের প্রথম পুলিশ অ্যাকশন থ্রিলার। বোম নিষ্ক্রিয় ইউনিটের সদস্য, পুলিশ কমিশনার, সোয়াট ও গোয়েন্দা কর্মকর্তা, সাংবাদিক সব ধরনের চরিত্রই আছে ছবিটিতে। অ্যাকশন দৃশ্যে ব্যবহার করা হয়েছে পুলিশের ব্যবহৃত ৪৫ পাউন্ড ওজনের বোমা স্কোয়াডের বিশেষ পোশাক ও পাঁচ কিলোগ্রাম ওজনের হেলমেট। এর পরিচালক দীপংকর দীপন দেড় যুগ ধরে নাটক ও ডকুমেন্টারি নির্মাণ করে হাত পাকিয়েছেন। ‘ঢাকা অ্যাটাক’ তার প্রথম ছবি। একদল চৌকস পুলিশের শ্বাসরুদ্ধকর অভিযান নিয়ে সাজানো হয়েছে এটি।

অন্য খবর  হোয়াইট হাউসের আদলের বাড়িতে জোলি-পিট

এতে অভিনয় করেছেন আরিফিন শুভ, মাহিয়া মাহি, এবিএম সুমন, শতাব্দী ওয়াদুদ, আলমগীর, আফজাল হোসেন, কাজী নওশাবা আহমেদ, সৈয়দ হাসান ইমাম, শিপন মিত্র এবং খল চরিত্রে অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী বাংলাদেশি তাসকিন রহমান।

ছবিটির মূল ভাবনা ও কাহিনি রচনা করেছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের এডিসি সানী সানোয়ার। ‘ঢাকা অ্যাটাক’ যৌথভাবে প্রযোজনা করেছে স্প্ল্যাশ মাল্টিমিডিয়া, ঢাকা পুলিশ পরিবার কল্যাণ সমিতি লি. ও থ্রি-হুইলারস লি।

Comments

comments