সিলেটে ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ দুপুরে, চলছে পুলিশের তল্লাশি|

47

সাত দফা দাবি আদায়ের দাবিতে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশকে কেন্দ্র করে সিলেট নগরীর মোড়ে-মোড়ে অতিরিক্ত তল্লাশি চালাচ্ছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। বুধবার (২৪ অক্টোবর) দুপুর দুইটায় নগরীর রেজিস্ট্রারি মাঠে সমাবেশ শুরু হবে। সকাল সাড়ে ১১টা পযর্ন্ত কোনও নেতাকর্মীর আটকের খবর পাওয়া যায়নি।

এদিকে, ফ্রন্টের নেতারা অভিযোগ করেছেন— সমাবেশকে কেন্দ্র করে সিলেটের প্রবেশপথগুলোতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ব্যাপক তল্লাশি চালাচ্ছে। সুনামগঞ্জ থেকে সিলেট আসার বিভিন্ন জায়গায় চেকপোস্ট বসিয়ে সমাবেশে লোক আসতে বাধা সৃষ্টি করা হচ্ছে।

বিএনপির সুনামগঞ্জ জেলা যুগ্ম সম্পাদক মুনাজ্জির সুজন বলেন, সুনামগঞ্জ থেকে সিলেটে আসতে লামাগাজি ও জাউয়া এলাকায় পুলিশ চেকপোস্ট বসিয়েছে। সুনামগঞ্জ শহর থেকে কোনও গাড়ি আসতে দিচ্ছে না। জায়গায় জায়গায় চেকপোস্ট বসানো হয়েছে।

সমাবেশকে কেন্দ্র করে নিরাপত্তার কাজে তৎপর পুলিশসরেজমিনে সিলেটের তালতলা, জিন্দাবাজার মোড়, কোর্ট পয়েন্ট, কিন ব্রিজ এলাকা, নগরীর বাসস্ট্যান্ডসহ কয়েকটি এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ দেখা গেছে।

সকাল ১০টার দিকে রেজিস্ট্রারি মাঠে গিয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর তৎপরতাও চোখে পড়েছে। মাঠে প্রবেশে পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদের মুখোমুখি হচ্ছেন নেতাকর্মীরা।

ড. কামাল হোসেন বলেন, ‘বিভিন্ন জায়গায় পুলিশের চেকপোস্ট বসানোর খবর এসেছে। এখনও কোনও আটকের খবর নেই।’

অন্য খবর  সক্রিয় হচ্ছেন বিএনপির নিষ্ক্রিয় নেতারা

বিশ দলীয় জোটের শরিক খেলাফত মজলিসের যুগ্ম মহাসচিব মুহাম্মদ মুনতাসির আলী বলেন, ‘সিলেটে মঙ্গলবার (২৩ অক্টোবর) রাতে বাসায় বাসায় নেতাকর্মী আতঙ্ক আছে।’

সমাবেশকে কেন্দ্র করে নিরাপত্তায় নিয়োজিত বাড়তি পুলিশঐক্যফ্রন্টের সমাবেশে তার দলের মহাসচিব অধ্যাপক আহমদ আবদুল কাদের আমন্ত্রণ পেয়েছেন বলেও জানান মুনতাসির আলী।

এদিকে,বুধবার দুপুর দুইটা নাগাদ নগরীর তালতলা রেজিস্ট্রারি মাঠে ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ শুরু হওয়ার দুই ঘণ্টা আগে কোর্ট পয়েন্টে প্রচারপত্র বিলি করবে স্থানীয় আওয়ামী লীগ।

জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী জানান, বুধবার বেলা বারোটা থেকে প্রচারপত্র অভিযান শুরু হবে। ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশ শুরু হওয়ার আগেই কমর্সূচি শেষ হবে।

জাতীয় ঐক্ফ্রন্টের জনসভার জন্য তৈরি মঞ্চঐক্যফ্রন্টের কযেকজন নেতার অভিযোগ— সমাবেশের আগে ক্ষমতাসীন দলের এমন কমর্সূচি উত্তেজনা তৈরি করতে পারে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে সিলেট মহানগর পুলিশ কমিশনার গোলাম কিবরিয়া বলেন, ‘শহরের পরিস্থিতি শান্ত। নিজ নিজ কমর্সূচি পালন করবে রাজনৈতিকর দলগুলো। তল্লাশি ও চেকপোস্ট বসানো হয়েছে নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে। যেকোনও উদ্ভুত পরিস্থিতি মোকাবিলা করতেই আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সতকর্ আছে।

Comments

comments