সারাদেশের মধ্যে দোহার – নবাবগঞ্জে সর্বোচ্চ ঘর পাচ্ছে গৃহহীন পরিবারগুলো

    132

    আল-আমিন, নিউজ৩৯: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা ও ঢাকা-১ সাংসদ সালমান এফ রহমানের চেষ্টায় উপজেলা ভিত্তিক সর্বোচ্চ ঘর বরাদ্দ পাচ্ছে দোহার-নবাবগঞ্জের গৃহহীন ১০১১ পরিবার। মুজিব বর্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নে সরকার গৃহীত কর্মসূচির অংশ হিসেবে দোহার ও নবাবগঞ্জ উপজেলায় তৃণমূল পর্যায়ে ভূমিহীন ও গৃহহীনদের যাচাই-বাছাই করে তালিকা চূড়ান্ত করা হয়। এদিকে কৈইলাল ইউনিয়নের ১৪০ ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে যা উপর থেকে দেখতে অনেকটা জাতীয় পতাকার আদলে।

    দোহার উপজেলা নির্বাহী অফিসারের ফিরোজ মাহমুদ নাইম বলেন, সরকারের বরাদ্দকৃত ১৯৮ এবং এমপি মহোদয়ের ও জনপ্রতিনিধিদের সহযোগিতায় ৪৩ মোট ২৪১টি ঘর ৮ ইউনিয়নের ও ১ টি পৌরসভার অসহায় দুস্থ ভুমিহীন গৃহহীন পরিবারের মাঝে বিতরণ করার জন্য দ্রুত কাজ এগিয়ে চলছে। প্রতিটি ঘরে খরচ হবে প্রায় ১লক্ষ ৭১ হাজার টাকা।  এমপি মহোদয়ের সরাসরি দিকনির্দেশনা মোতাবেক কাজ পরিচালনা করা হচ্ছে ।

    নবাবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এইচএম সালাউদ্দিন মনজু বলেছেন, সারা দেশের উপজেলা ভিত্তিক সর্বোচ্চ ঘর বরাদ্দ পাচ্ছে দোহার-নবাবগঞ্জের গৃহহীন ১০১১ পরিবার। সংসদ সদস্য সালমান এফ রহমান এমপি’র বিশেষ অবদানের কথা স্বীকার করে বলেন, আমাদের বরাদ্দ দেশের বিভিন্ন উপজেলা থেকে সর্বোচ্চ। নবাবগঞ্জ উপজেলার ১৪টি ইউনিয়নে ৭৭০ ভূমিহীন গৃহহীন সুবিধা বঞ্চিত পরিবার ঘর পাবেন।

    অন্য খবর  করোনায় পুলিশ সদস্যের মৃত্যুতে আইজিপির শোক প্রকাশ

    সালাউদ্দিন মনজু আরও বলেন, এমপি মহোদয়ের দিকনির্দেশনা মোতাবেক ডিজাইনে উপজেলার কৈইলাল ইউনিয়নের ১৪০ ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে যা উপর থেকে দেখতে অনেকটা জাতীয় পতাকার আদলে।

    নবাবগঞ্জ উপজেলার পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ নাসিরউদ্দিন আহমেদ ঝিলু বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নে আমাদের প্রাণপ্রিয় নেতা সালমান এফ রহমানের নেতৃত্বে আমরা তৃণমূল পর্যায়ে কাজ করে যাচ্ছি । মুজিব শতবর্ষ উপলক্ষে বাস্তবায়িত কমসূচি সফল হোক।

    Comments

    comments