সাভারে দু’গ্রুপের সংঘর্ষ, শটগানসহ আটক ৫

27

স্টাফ রিপোর্টার: সাভারের আমিনবাজার বড়দেশী এলাকায় জমি দখলকে কেন্দ্র করে দুটি হাউজিং কোম্পানির মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। খবর পেয়ে সাভার মডেল থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ৪টি শটগানসহ পাঁচজনকে আটক করেছে। গতকাল দুপুরের দিকে আমিনবাজার ইউনিয়নের বড়দেশী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। আটককৃতরা হলো- মাদারীপুর জেলার কালকিনী থানার জৈলচুরি সন্দাল গ্রামের শফিকুল ইসলাম ইমন (২৫), চাঁদপুর জেলার কচুয়া থানার নোলুয়া গ্রামের আবুল কাশেম (৩৭), যশোর জেলার কোতোয়ালি থানার রহেলাপুর গ্রামের মো. আশরাফুল আলম (৩৫), চাঁদপুর জেলার ফরিদগঞ্জ থানার বাদপুর গ্রামের আব্দুর রহমান তালুকদার (৪৭) ও মোড়লগঞ্জ জেলার কাউনিয়া গ্রামের ফিরোজ খান (৪৪)।

থানা পুলিশ জানায়, সাভারের আমিনবাজার বড়দেশী এলাকার গ্রাম বাংলা আবাসন এবং আকাশ নিলা আবাসন কোম্পানির মধ্যে জমির সীমানা নিয়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল গিয়ে ৪টি শটগানসহ ৫ জনকে আটক করে থানায় আনা হয়েছে। তবে পুলিশের বক্তব্যকে সাজানো উল্লেখ করে আকাশ নিলার চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট জিল্লুর রহমান বলেন, দুপুরে জুমার নামাজের সময় আমাদের মসজিদের সামনে কয়েকজন নিরাপত্তা কর্মী তাদের দায়িত্ব পালন করছিল। এ সময় হঠাৎ পুলিশ কয়েকজন লোক সঙ্গে নিয়ে আমাদের লোকজনকে আটক করে পার্শ্ববর্তী সিলিকন হাউজিংয়ের আনছার ক্যাম্পের ভেতরে নিয়ে গিয়ে মারধর করে। পরে তাদের কাছে থাকা বৈধ অস্ত্রসহ চারজনকে আটক করে নিয়ে যায়।

অন্য খবর  দলীয় মনোনয়ন জমা দিলেন নির্মল রঞ্জন গুহ 

এ বিষয়ে জানতে চাইলে সাভার মডেল থানার ইন্সপেক্টর অপারেশন মো. জাকারিয়া হোসেন এসব অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা ও বানোয়াট বলে জানায়। আকাশ নিলার চেয়ারম্যান জিল্লুর রহমান একটি চাঁদাবাজি মামলার পলাতক আসামি। তাদের লোকজনের কাছে যে অস্ত্র পাওয়া গেছে সেগুলো চাঁদপুরের জন্য লাইসেন্স করা। এসব অস্ত্র নিয়ে তারা হাউজিংয়ের ভেতর আতঙ্ক সৃষ্টির জন্য মহড়া দিচ্ছিল। এ ঘটনায় সাভার মডেল থানায় একটি মামলা করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও জানান তিনি।

Comments

comments