মুজিবর্ষের ঈদ উপলক্ষে দোহার – নবাবগঞ্জে দুস্থ ও পথশিশুদের মাঝে ঈদ বস্ত্র ও নগদ অর্থ বিতরণ

29
মুজিবর্ষের ঈদ উপলক্ষে দোহার - নবাবগঞ্জে দুস্থ ও পথশিশুদের মাঝে ঈদ বস্ত্র ও নগদ অর্থ বিতরণ।

পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষে দোহার-নবাবগঞ্জ উপজেলার অর্ধশত দুস্থ মানুষ ও পথ শিশুদের মাঝে ঈদ বস্ত্র ও নগদ অর্থ বিতরণ করেছে বাংলাদেশ সেনা বাহিনীর সদস্যগণ। শনিবার (২৩ মে) দুপুরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী বা মুজিব বর্ষের ঈদ উপলক্ষে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর তত্ত্বাবধানে এই ঈদ সামগ্রী বিতরণ করা হয়। ব্যতিক্রমধর্মী এই জনকল্যাণমূলক কাজের নেতৃত্বে ছিলেন মেজর রাশাদ বিন কালাম।
করোনা পরিস্থিতির শুরু থেকেই দোহার-নবাবগঞ্জ এ মানবতার সেবায় কাজ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী। বিভিন্ন পর্যায়ের গরিব-দুঃখী কর্মহীন অসহায় মানুষের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ, মাদ্রাসায় এতিম বাচ্চাদের জন্য ঈদ উপহার সামগ্রী ও নগদ অর্থ বিতরণ ছাড়াও করোনা পরিস্থিতি সামাল দেয়ার জন্য সর্বাত্মক চেষ্টা করে যাচ্ছে দায়িত্বে নিয়োজিত বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর সদস্যগণ। কিন্তু মুজিব শতবর্ষের ঈদ উপলক্ষে আজকের এই কার্যক্রম ছিল কিছুটা ভিন্নধর্মী।
সেনাসদস্যদের কাছ থেকে জানা যায়,দোহার নবাবগঞ্জ এর পথ শিশুদের সাথে ঈদ আনন্দ ভাগাভাগি করার উদ্দেশ্যে উপহার সামগ্রী হিসেবে ঈদবস্ত্র বিতরণ করা হয়। তাদের বিতরণ করা এই ঈদ বস্ত্রের বড় অংশ পেয়েছে দোহারের বেদে পল্লিতে বেড়ে ওঠা দরিদ্র শিশু-কিশোরেরা।‌ এই ঈদ সামগ্রী হাতে পেয়ে তাদের উল্লাস ছিল অনেকটাই বাঁধভাঙা।
দোহার নবাবগঞ্জ এই দুর্যোগপূর্ণ মুহূর্তে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী তাদের বিভিন্ন জনকল্যাণমূলক কার্যক্রমের মাধ্যমে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। দোহার নবাবগঞ্জবাসী সেনাবাহিনীর এই কার্যক্রমকে সাদরে গ্রহণ করে অভিনন্দন জানিয়েছেন দোহার-নবাবগঞ্জে দায়িত্বে নিয়োজিত সকল সেনা সদস্যগণকে। ভবিষ্যতেও বাংলাদেশ সেনাবাহিনী দোহার নবাবগঞ্জ এর পাশে থেকে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে দোহার নবাবগঞ্জ এর সকল রকম উন্নতি ও সমৃদ্ধিতে কাজ করে যাবে এটাই সকলের আশা।

অন্য খবর  নবাবগঞ্জে ডাকাতি

Comments

comments