প্রথমবারের মতো এইচএসসি পরীক্ষাকেন্দ্র সরকারি পদ্মা কলেজঃ সর্বোচ্চ মানের প্রত্যাশা অধ্যক্ষের

248
প্রথমবারের মতো এইচএসসি পরীক্ষাকেন্দ্র সরকারি পদ্মা কলেজঃ সর্বোচ্চ মানের প্রত্যাশা অধ্যক্ষের

এপ্রিল থেকে শুরু হচ্ছে এইচএসসি পরীক্ষা-২০১৯। এবার ঢাকার দোহার উপজেলার এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের জন্য নতুন কেন্দ্র হিসাবে নির্বাচিত হয়েছে সরকারি পদ্মা কলেজ। এ ছাড়া পূর্বের কেন্দ্র হিসাবে রয়েছে জয়পাড়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ। মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের প্রধান পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক তপন কুমার সরকারের সাক্ষরিত এক পরিপত্রে (নং৪৭০/উঃমাঃপরি/৯১/৪৮০) সরকারি পদ্মা কলেজ নতুন কেন্দ্র হিসাবে পদ্মা কলেজকে অনুমোদন দিয়েছে।

এর ফলে জয়পাড়া কলেজের শিক্ষার্থীরা পরীক্ষা দিবে সরকারি পদ্মা কলেজে, আর মালিকান্দা স্কুল এন্ড কলেজ, বেগম আয়েশা স্কুল এন্ড কলেজ ও সরকারি পদ্মা কলেজের শিক্ষার্থীরা পরীক্ষা দিবে জয়পাড়া কলেজে। এতে সব কলেজের শিক্ষার্থীদের প্রতি সদয় ও সম আচরনের পথ খুলে গেছে বলে সংশ্লিষ্টদের ধারনা।

দোহারের এইচ এস সি পরীক্ষার নতুন কেন্দ্র হয়েছে পদ্মা কলেজ। এই ব্যাপারে পদ্মা কলেজের অধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) জালাল হোসেন নিউজ৩৯ কে বলেন, দোহার উপজেলার একমাত্র সরকারি কলেজ হওয়ায় এবং অবকাঠামো ভালো হওয়ায় আমরা সর্বোচ্চ মান বজায় রেখে ভালো পরীক্ষা উপহার দিবো। শিক্ষার্থীরা যেন স্বচ্ছন্দে এবং স্বাভাবিক পরিবেশে পরীক্ষা দিতে পারে, আমরা সরকারি পদ্মা কলেজ পরিবার সে ব্যাপারে সচেষ্ট। তিনি আরো বলেন, আমার সন্তান বর্তমানে সে বুয়েটে অধ্যয়নরত। তার জন্য যেমন পরীক্ষা কেন্দ্র আমি প্রত্যাশা করি, একই রকমভাবে আমার কাছে প্রতিটি শিক্ষার্থী, আমার সন্তান। আমি তাদের জন্য স্বাভাবিক ও স্বচ্ছন্দ এবং মানসম্মত পরিবেশ নিশ্চিত করবো।আর গতবার ভেন্যু কেন্দ্র হিসাবে আমরা আমাদের যোগ্যতার প্রমাণ দিয়েছি।

অন্য খবর  নবাবগঞ্জে রিভলবারসহ গ্রেফতার ১

তিনি আরো বলেন, প্রশাসন ও কেন্দ্রের সহায়তায় শিক্ষার্থীবান্ধব পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে । আমি সার্বিকভাবে উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা আফরোজা আক্তার রিবা, বিশেষ করে জয়পাড়া কলেজের অধ্যক্ষ সিদ্দিকুর রহমান সহ জয়পাড়া কলেজকে ধন্যবাদ জানাই সার্বিক সহায়তা করার জন্য। এছাড়া মালিকান্দা ও মেঘুলা কলেজের অধ্যক্ষ অজয় রায় কেও বিশেষ ধন্যবাদ সার্বিক সহায়তা করায়।

এছাড়া নতুন ভেন্যু হওয়ায় তিনি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল, দোহার-নবাবগঞ্জের সাংসদ সালমান এফ রহমান এমপি, তত্বাবধায়ক সরকারের সাবেক উপদ্বেষ্টা মেজর জেনারেল (অবঃ) ডাঃ এ আর খান, আই জি আর বাংলাদেশ ও সাবেক জেলা জজ ড. খান মোঃ আব্দুল মান্নানসহ স্থানীয়  এলাকাবাসী, শিক্ষক-কর্মচারীদেরকে  আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

Comments

comments