নয়াবাড়িতে শিশু ধর্ষনের চেষ্টা

714

ঢাকা জেলার নয়াবাড়ি ইউনিয়নে পূর্ব ধোয়াইর গ্রামে দুই শিশু ধর্ষনের চেষ্টার ঘটনা ঘটেছে। ৭ জুন সন্ধ্যায় এই ধর্ষন চেষ্টার ঘটনা ঘটে। এই ধর্ষনের চেষ্টা করেন ঐ এলাকারই মুদি দোকানদার ফজল মাদবর ও ওয়াসেফ দেওয়ান। ধর্ষন চেষ্টার শুরুতে শিশুর চিৎকারে এলাকাবাসী ছুটে এলে ধর্ষনের চেষ্টাকারী ফজল মাদবর ও ওয়াসেফ দেওয়ান পালিয়ে যায়। পরে এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ফজল মাদবরের বাসায় শিশুদের চাচা হারুন অর রশিদ গেলে তাকে আক্রমন করে আহত করে ফজল দেওয়ানের পরিবার।

জানা যায়, ৭ ও ১০ বছরের দুই বোনকে সন্ধ্যায় চকলেট খাওয়ানোর লোভ দেখিয়ে স্থানীয় মুদি দোকানদার ফজল ও তার সহযোগী ওয়াসেফ দেওয়ান ফজল দেওয়ানের মুদি দোকানে ঢুকালে দুটি শিশুর একটি চিৎকার করলে এলাকাবাসী এসে শিশু দুটিকে উদ্ধার করে। এর পরিপ্রেক্ষিতে শিশু দুটির চাচা হারুন ফজল দেওয়ানের কাছে এই ব্যাপারে জানতে তার বাড়িতে গেলে ফজল দেওয়ানের মেয়ে ফারজানা হারুনকে টর্চ লাইট দিয়ে মাথায় বাড়ি দিয়ে আহত করে। ফলশ্রুতিতে এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে হারুন দোহার থানায় এসে সাধারন ডায়েরি করে।

অন্য খবর  দোহার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসক সংকট, স্বাস্থ্যসেবা থেকে বঞ্চিত রোগীরা

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক পূর্ব ধোয়াইর গ্রামের এক বাসিন্দা বলেন, এই রকম ন্যাক্কারজনক ঘটনা আসলে মেনে নেয়া যায় না। এর অতি দ্রুত প্রতিকার ও সঠিক বিচার হওয়া উচিত। দুপুরে পুলিশ এসেছিল কিন্তু তারপর চলে গেছে। যাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ তারা এলাকাতেই অবস্থান করছে।

এই ঘটনায় দায়িত্ব প্রাপ্ত তদন্তকারী অফিসার এস আই শাহ আলম নিউজ৩৯কে বলেন, ঘটনার অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। আমি নিজে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি এবং ঘটনার সাথে জড়িত যারা আছে তাদের ধরতে অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে।

এই ঘৃন্য ঘটনায় নয়াবাড়িতে আলোড়ন সৃষ্টি করেছে। অতি দ্রুত দোষীদের আটক করে আইনের আওতায় আনার দাবি জানিয়েন এলাকাবাসী।

Comments

comments