চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে ঢাকার ধামরাইয়ে এক প্রবাসীর স্ত্রীকে (২৪) গণধর্ষণের অভিযোগে জসিম (২৫) নামে মূল অভিযুক্ত এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শনিবার (১৪ সেপ্টেম্বর) দুপুরে ধামরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা এ তথ্য বাংলানিউজকে জানান। শুক্রবার (১৩ সেপ্টেম্বর) দিনগত রাতে টাঙ্গাইলের নাগরপুর উপজেলা থেকে তাকে আটক করা হয়।

এরআগে, বৃহস্পতিবার (১২ সেপ্টেম্বর) রাতে ধামারাই থানায় মামলা দায়ের করেন ভুক্তভোগী নারী।

জসিম একই উপজেলার মেঘনাবাজার এলাকার দাউদ ইসলামের ছেলে।

মামলায় উল্লেখ করা হয়, কিছুদিন আগে চাকরি খোঁজার সুবাদে অভিযুক্ত জসিমের সঙ্গে পরিচয় হয় ওই নারীর। এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) বিকেলে চাকরি দেওয়ার কথা বলে জসিম মোবাইল ফোনের মাধ্যমে ভুক্তভোগী ওই নারীকে ধামরাইয়ের নিজ বাসায় ডেকে নিয়ে পাঁচ/ছয়জন মিলে পালাক্রমে গণধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। পরে ভুক্তভোগী নারীর চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।

ধামারাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, গণধর্ষণের ঘটনায় মূল অভিযুক্ত জসিমকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্য আসামিদের গ্রেফতারে চেষ্টা চলছে।

অন্য খবর  সড়ক দুর্ঘটনায় যাত্রাবাড়ীতে বৃদ্ধের মৃত্যু

Comments

comments