দোহার-নবাবগঞ্জ-হরিরামপুর রক্ষায় ৬ দফা দাবি

118

পদ্মার ভাঙ্গন থেকে দোহার-নবাবগঞ্জ-হরিরামপুরকে রক্ষা করার জন্য ৬ দফা দাবি জানিয়েছন দোহার-নবাবগঞ্জ-হরিরামপুর রক্ষা আন্দোলনের আহ্বায়ক কবি কাজী মহিউদ্দিন। বৃহস্পতিবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেয়া এক বিজ্ঞপ্তিতে এ দাবি জানানো হয়। দাবির সাথে একাত্বতা প্রকাশ করেছেন সেভ দ্য সোসাইটি এন্ড থান্ডারস্টর্ম অ্যাওয়ারনেস ফোরামের সাধারন সম্পদক রাশিম মোল্লা। তিনি বলেন, ইতোমধ্যে দোহার, নবাবঞ্জ ও হরিরামপুরের অনেক পরিবার ভিটে মাটি পদ্মার ভাঙ্গনে বিলীন হয়ে গেছে। আর একটি পরিবারকে যাতে বসতবাড়ি হারাতে না হয় সেজন্য আমাদের সসাত দফা বাস্তবায়নে স্থানীয় সাংসদদের কার্যকরী ভূমিকা রাখার সবিনয় অনুরোধ জানান। বাপ দাদার বাড়ি হারানোর ব্যাথা শুধু তারাই জানে যাদের ঘর বাড়ি ইতোমধ্যে বিলীন জয়ে গেছে।
দফাগুলো হলো-
১। পাটুরিয়া(আরিচা) ঘাট থেকে শিমুলিয়া(মাওয়াঘাট) ঘাট পর্যন্ত নদীর তীর ঘেষে বাঁধ নির্মাণ ও সীসা ঢালাই করে স্থায়ী নদীশাসন করতে হবে।

২। ইছামতি নদী রক্ষাসহ অত্র এলাকা বন্যামুক্ত রাখা এবং নৌচলাচল স্বাভাবিক রাখার লক্ষ্যে (১)সোনাবাজু, (২) ঘোষাইল-রাজাপুর খাল এবং (৩) কার্তিকপুর ইছামতি নদীতে অতি জরুরী ভিত্তিতে তিনটি স্লুইস গেইট নির্মাণ।

৩। বর্তমান বিদ্যমান বেড়িবাঁধ প্রশস্ত ও সংস্কার করে সরাসরি মানিকগঞ্জ শহর থেকে মাওয়াঘাট পর্যন্ত বাস চলাচলের ব্যবস্থা।

অন্য খবর  নবাবগঞ্জে নারী ও শিশু নির্যাতন মামলায় ইউপি সদস্য গ্রেফতার

৪। বান্দুরা থেকে বারুয়াখালী হয়ে সোজা ঘোষাইল-রায়পুর দিয়ে ধুলশুড়া- ইব্রাহিমপুর পর্যন্ত রাস্তা উচু ও প্রশস্ত করে বাস চলাচলের ব্যবস্থা।

৫। জামসা বাজার থেকে শিকারীপাড়া হয়ে বেড়িবাঁধ পর্যন্ত বাস চলাচলের ব্যবস্থা।

৬। কঠুরী থেকে বারুয়াখালী হয়ে বালুখন্ড-পাতিলঝাপ দিয়ে হেমায়েতপুর এবং কেরানীগঞ্জ পর্যন্ত সড়ক নির্মাণ করে বাস চলাচলের ব্যবস্থা।

Comments

comments