দোহার উপজেলা প্রকৌশলীকে পেটানোর অভিযোগ উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতির বিরুদ্ধে

35

নিজস্ব প্রতিবেদক: দোহার উপজেলার প্রশাসনের নির্বাহী প্রকৌশলী কবির উদ্দিন শাহকে নিজ অফিস কক্ষে ঢুকে পেটানোর অভিযোগ উঠেছে দোহার উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আমিনুল ইসলামের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় দোহার থানায় মামলা করেছেন কবির উদ্দন শাহ্। রবিবার (২ ফেব্রুয়ারি) বিকেল চারটার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

মামলায় কবির খান শাহ উল্ল্যেখ করেছেন, একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ভবন নির্মাণ কাজের প্রসঙ্গে আমিনুল ইসলাম ও প্রকৌশলী কবির উদ্দিন শাহর অফিস কক্ষে কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে দোহার উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আমিনুল ইসলাম ও তার কর্মিরা চড়াও হয় এবং তাকে পিটিয়ে আহত করে এবং অফিস কক্ষের প্রায় সাড়ে নয় হাজার টাকার মালামাল ক্ষতি সাধন করে এবং প্রাণনাশের হুমকি দেয় বলে মামলায় উল্লেখ করা হয়।

কবির উদ্দিন শাহ অভিযোগ করেণ, আমিনুল ও তার সহযোগীরা টেবিলের গ্লাসসহ কিছু জিনিসপত্র ভেঙে ফেলে।

এ ঘটনায় রবিবার সন্ধায় উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আমিনুল ইসলাম ও অজ্ঞাত ৪/৫ জনকে আসামি করে দোহার থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আমিনুল ইসলাম বলেন, কার্তিকপুর একটি স্কুলের ভবনের ঢালাই কাজ সম্পন্ন হওয়ায় এর ছারপত্র চাইলে প্রকৌশলী কবির উদ্দিন শাহ্ আমার কাছে ঘুষ দাবি করেন। ঘুষ দিতে রাজি না হওয়ায় আমার সাথে তার সাথে বাকবিতন্ডা হয়। একপর্যায়ে সে ছাত্রলীগকে নিয়ে গালিগালাজ করলে আমার সাথে থাকা এক কর্মী তাকে ক্যালকুলেটার ছুড়ে মারে।

অন্য খবর  মুকসুদপুর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হালিম আটক

দোহার থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সাজ্জাদ হোসেন বলেন, এ বিষয়ে ইঞ্জিনিয়ার কবির উদ্দিন শাহ মামলা দায়ের করেছেন। ঘটনার সাথে সম্পৃক্তদের তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এ ঘটনা ষড়যন্ত্র মূলক আখ্যায়িত দিয়ে, অবিলম্বে মামলা প্রত্যাহার ও ইঞ্জিনিয়ার কবির উদ্দিন শাহকে অপসারন দাবী করেছে দোহার উপজেলা ছাত্রলীগ।

Comments

comments