দোহারে মুক্তিযোদ্ধার বসত বাড়ি ভাংচুরের অভিযোগ

335

দোহারের মুক্তিযোদ্ধা কুরবান শরীফের বসত বাড়ি ভাংচুর করে দখল চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এঘটনায় দোহার উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার রজ্জব আলী মোল্লা নিন্দা জ্ঞাপন করেছেন।

শুক্রবার সকালে উপজেলার কুসুমহাটি ইউনিয়নের সুন্দরীপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। বৃদ্ধ কুরবান আলী ঐ গ্রামের মৃত কুব্বাত শরীফের ছেলে।

মুক্তিযোদ্ধা কুরবান শরীফ অভিযোগে করেন, কার্তিকপুর মৌজার এসএ ৮২৫দাগের ২২ শতাংশ জমি তার পূর্বপুরুষের ওয়ারিশ সূত্রে প্রাপ্ত। সেখানে একশত বছরের বেশি সময় ধরে তিনিসহ বাপ-দাদারা বসবাস করছেন।

শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে প্রতিবেশি ইসমাইল ভূইয়ার ছেলে লিমন ভূইয়া ও মামুন ভূইয়ার নেতৃত্বে ২০/২৫ জনের একটি দল  বাড়ি-ঘর ভাংচুর চালায়। এসময় তিনি বাড়িতে ছিলেন না। বাড়িতে থাকা স্কুল পড়–য়া মেয়ে ও স্ত্রী রাশিদা বেগম বাধা দেয়ার চেষ্টা করলে তাদের লাঠিসোটার ভয় দেখানো হয়। হামলাকারীরা বাড়ির দুটি টিনকাঠের দু’চালা ঘর ও একটি রান্না ঘর মুহুর্তে ভেঙে ফেলে চলে যায়। এতে তিনি নি:শ্ব হয়ে পড়েছেন। এবিষয়ে দোহার থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে। অভিযুক্ত লিমন ভূইয়া ও মামুন ভূইয়ার সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টার করে সংযোগ পাওয়া  যাওয়া যায়নি।

অন্য খবর  ছুটির দিনে মুখরিত বান্দুরা হলিক্রশের শতবর্ষ পূর্তি অনুষ্ঠান

দোহার উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার রজ্জব মোল্লা এ হামলার নিন্দা জ্ঞাপন করে বলেন, বৃদ্ধ মুক্তিযোদ্ধা কুরবান শরীফের পরিবারের উপর হামলাকারীদের দ্রুত আইনের আওতায় আনা হোক। যাতে এদেশের মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের উপর কোন দুস্কৃতিচক্র হাত রাড়াতে না পারে।

দোহার থানার পরিদর্শক তদন্ত ইয়াসিন মুন্সি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, সরেজমিন পরিদর্শন করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Comments

comments