দোহারে মনি বেগমের রহস্য জনক হত্যার বিচারের দাবিতে মানববন্ধন

330

ঢাকার দোহার উপজেলার মুকসুদপুর ইউনিয়নের মইতপাড়া গ্রামের পল্লী বাজারে মনি বেগম (২৪) এর রহস্যময় মৃত্যুর বিচারের ও সন্দেহজনক আসামী মনি বেগমের স্বামী মামেদ আলীর ফাঁসি চেয়ে মানববন্ধন করে মনি বেগমের আত্বীয়স্বজন ও এলাকাবাসী। শুক্রবার সকাল ১০ঃ৩০ মি মনির পিতা আমীর আলী ও মাতা রীনা বেগমের নেতৃত্বে প্রায় দুই শতাধিক এলাকাবাসীকে সংগে নিয়ে মামেদ আলীকে গ্রেপতারে দাবিতে মানববন্ধন করেন। উল্লেখ্য যে গত একমাস আগে মনি বেগমের রহস্যময় মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর থেকে মনি বেগমের স্বামী মামেদ আলী পলাতক রয়েছেন। এ পর্যন্ত ঘটনার কোন তদন্ত বা বিচার না পাওয়ায় এ মানববন্ধন করে।

মনি বেগমের মা জানান, গত একমাস দুই দিন আগে আমরা মেয়েকে তার স্বামীর বাড়িতে গলায় ফাঁসি দেওয়া অবস্থায় পাই। আমার মেয়ের শ্বশুর বাড়ি থেকে খবর দেয় আমাকে আপনার মেয়ের কি যেন হয়েছে। খবর পেয়ে আমি ঐ বাড়িতে গেলে দেখি আমার মেয়ে কে ঘরে তলাবদ্ধ করে রেখেছে। তালা ভেঙ্গে ঘরে গিয়ে দেখি আমার মেয়ে গলায় ওড়না দিয়ে ঝুলে আছে। তার পা দুটি ছিল খাটে । আমরা মনিকে উদ্ধার করে দোহার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক মনিকে মৃত ঘোষণা করলে মনির স্বামী মামেদ আলী পালিয়ে যায়। এ বিষয়ে দোহার থানায় মামলা করতে পারিনি এবং ময়নাতদন্তের রিপোর্ট ও পাইনি। আমি আমার মেয়ে মনি হত্যার সুষ্ঠ বিচার চাই।

অন্য খবর  নয়াবাড়ী ইউনিয়নঃ বিএনপি’র ভোটে চেয়ারম্যান নির্ধারণ

নিহত মনির পিতা বলেন, আমার মেয়ের দুটি সন্তান রয়েছে, একটি ৮ বছরের মেয়ে তাসলিমা সে সপ্তম শ্রেনীতে পড়ে ও একটি ৪ বছরের ছেলে সোলায়মান। আমরা আমার মেয়ে মনি হত্যার সুষ্ঠ বিচার ও মামেদের ফাঁসি চাই।

Comments

comments