দোহারের মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফা ‘বীর বিক্রম-বীর প্রতিক’ এর দাফন সম্পন্ন

244
গোলাম মোস্তফা

দোহারের একমাত্র যুদ্ধে আহত হয়ে খেতাবপ্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধা সার্জেন্ট গোলাম মোস্তফা আর নেই। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭০বছর। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ন’টায় রাজধানীর পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন। মুক্তিযুদ্ধে অসামান্য অবদানের জন্য একমাত্র ব্যক্তি হিসেবে একাধারে বীর বিক্রম ও বীর প্রতীক উপাধি লাভ করেন তিনি।

শুক্রবার বেলা ১১ টায় শ্যামলীতে মুক্তিযুদ্ধা টাওয়ার প্রাঙ্গণে রাষ্ট্রীয় সম্মান শেষে কলেজগেইট কেন্দ্রীয় মসজিদে প্রথম নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। পরে বাদ জুম্মা বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে দ্বিতীয় নামাজে জানাজা এবং রাষ্ট্রীয় সম্মান শেষে বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে দাফন করা হয়। যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফার গ্রামের বাড়ি ঢাকার দোহারের নারিশা ইউনিয়নের ঝনকি গ্রামে।

যুদ্ধাহত মুুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফার ডান পা উড়ে যায়, বা পায়েও গুরুতর আঘাত পেয়েছেন। মহান মুক্তিযুদ্ধে মুক্তিযুদ্ধা সার্জেন্ট গোলাম মোস্তফা বীর বিক্রম ও বীর প্রতিক ৩ নম্বর সেক্টর যুদ্ধ করেন।

১৯৭১ সালের ৬ ডিসেম্বর ব্রাক্ষনবাড়িয়ার চান্দুয়ায় যুদ্ধের সময় তার দুই পায়ে গুলি লাগে পরে তার ডান পা কেটে ফেলা হয়।

Comments

comments