ইউরোপে আসছে নতুন টুর্নামেন্ট - জেনে নিন আদ্যোপান্ত!

সুইজারল্যান্ডের নিওনে অবস্থিত ইউয়েফা এক্সিকিউটিভ কমিটি দ্বারা অনুমোদন পেল ‘ইউয়েফা নেশন্স লীগ’ নামে নতুন টুর্নামেন্ট। ইতিমধ্যে টুর্নামেন্টে দলগুলো খেলার নিয়মকানুনও ঠিক করা হয়েছে। চলুন বিস্তারিত জেনে নিই নতুন এই টুর্নামেন্ট সম্পর্কে।

প্রথমেই জেনে নিই কিভাবে আসলো এই টুর্নামেন্ট?

ইউয়েফা এবং তার অন্তর্ভুক্ত ৫৫ ফুটবল এসোসিয়েশন এর অনুরোধের প্রেক্ষিতে চালু হতে যাচ্ছে সম্পুর্ন নতুন এই টুর্নামেন্ট। আন্তর্জাতিক ফুটবলের মান বৃদ্ধি ও গুরুত্ব বাড়ানোর লক্ষ্যেই মূলত এই টুর্নামেন্ট আয়োজন। সর্বপ্রথম ২০১১সালে সাইপ্রাসে ইউয়েফার মিটিং এ টুর্নামেন্টের ব্যাপারে প্রস্তাব তোলা হয়। এরপর পরবর্তী ৩বছর টপ এক্সিকিউটিভ প্রোগ্রাম (টিইপি)-এর তত্ত্বাবধানে এ প্রস্তাব পর্যালোচনা করা হয়। অবশেষে কাজাকস্থানের রাজধানী আস্তানায় ৩৮তম ইউয়েফা কংগ্রেসে সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদন দেয়া হয় ‘ইউয়েফা নেশন্স লীগ’ এর।

এবার আসুন টুর্নামেন্টের ফরম্যাট সম্পর্কে জানি

প্রথমে ইউয়েফার অধীন ৫৫ ফুটবল এসোসিয়েশন অর্থাৎ জাতীয় দলকে ইউয়েফা র‍্যাংকিং অনুসারে ৪টি লীগে ভাগ করা হবে। র‍্যাংকিং এ ১ম সারির দলগুলো নিয়ে হবে ‘লীগ-এ’। পরবর্তী ক্রমানুসারে হবে ‘লীগ-বি’। ‘লীগ-এ’ এবং ‘লীগ-বি’ তে থাকবে মোট ৪টি গ্রুপ, যার প্রত্যেকটি হবে মোট ৩টি করে দল নিয়ে। এছাড়া ‘লীগ – সি’ তেও মোট ৪টি গ্রুপ থাকবে, যার প্রথমটি হবে ৩টি দল নিয়ে এবং বাকি ৩টি গ্রুপ হবে ৪টি করে দল নিয়ে। সর্বশেষ ‘লীগ – ডি’ তে ৪টি গ্রুপের প্রত্যেকটিতে মোট ৪টি করে দল থাকবে।

আসুন জেনে নিই আমাদের পছন্দের দলগুলো কে কোন লীগে থাকছে?

অন্য খবর  বার্সা থেকেই অবসরে যাবেন মেসি, বিশ্বাস সভাপতির

লীগ-এঃ জার্মানী, পর্তুগাল, বেলজিয়াম, স্পেন, ফ্রান্স, ইংল্যান্ড, সুইজারল্যান্ড, ইটালী, পোল্যান্ড, আইসল্যান্ড, ক্রোয়েশিয়া, নেদারল্যান্ড

লীগ-বিঃ অস্ট্রিয়া, ওয়েলস, রাশিয়া, স্লোভাকিয়া, সুইডেন, ইউক্রেন, তুরষ্ক, ডেনমার্ক, চেক প্রজাতন্ত্র, রিপাবলিক অব আয়ারল্যান্ড, নর্দান আয়ারল্যান্ড, বসনিয়া এন্ড হার্জেগোভিনা

লীগ-সিঃ হাংগেরী, রোমানিয়া, স্কটল্যান্ড, স্লোভেনিয়া, গ্রীস, সার্বিয়া, আলবেনিয়া, ইসরাইল, মন্টেনেগ্রো, বুলগেরিয়া, ফিনল্যান্ড, সাইপ্রাস, এস্তোনিয়া, লিথুনিয়া, নরওয়ে

লীগ-ডিঃ আজারবাইজান, মেসিডোনিয়া, বেলারুশ, জর্জিয়া, আর্মেনিয়া, লাটভিয়া, লুক্সেমবার্গ, কাজাকস্থান, লিচেস্টেইন, মাল্টা, কসোভো, সান ম্যারিনো, জিব্রাল্টার, ফারো আইল্যান্ড, এন্ডোরা

কখন হবে এই টুর্নামেন্টের ড্র?

ইউয়েফা নেশন্স লীগের ড্র অনুষ্ঠিত হবে ২৪শে জানুয়ারী, ২০১৮ সুইজারল্যান্ডের লুইসানে অবস্থিত সুইস টেক কনভেনশন সেন্টারে।

কোন কোন দল প্রোমোটেড/রেলিগেটেড হবে?

‘লীগ-বি’, ‘লীগ-সি’ এবং ‘লীগ-ডি’ এর বিজয়ী দলগুলো পরের স্টেজে প্রোমোটেড হবে। অন্যদিকে ‘লীগ-এ’, ‘লীগ-বি’ এবং ‘লীগ-সি’ এর তলানীতে থাকা দল বাদ পড়বে।

এছাড়া ‘লীগ-এ’ তে থাকা ৪টি গ্রুপের বিজয়ী ৪দল নিয়ে ২টি সেমিফাইনাল, ১টি ফাইনাল এবং ১টি ৩য় স্থান নির্ধারণী প্লে-অফ ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে ২০১৯ এর জুন মাসে। এদের মধ্যে যেকোন ১দল আয়োজকের দায়িত্ব পালন করবে, যা ২০১৮ এর ডিসেম্বরে ইউয়েফা এক্সিকিউটিভ কমিটি দ্বারা নির্ধারিত হবে।

কখন এই টুর্নামেন্ট শুরু হবে?

ইউয়েফা নেশন্স লীগের গ্রুপ স্টেজের খেলাগুলো ২০১৮এর সেপ্টেম্বর, অক্টোবর এবং নভেম্বরে অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া প্রতিবার ইন্টারন্যাশনাল ব্রেকের মাঝে ২টি করে ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে।

ইউরোপিয়ান কাপ কোয়ালিফিকেশনের উপর এর প্রভাব কতটুকু?

পরবর্তী ইউরোপিয়ান কোয়ালিফায়ার্সের নির্ধারিত স্থানগুলো ইউয়েফা নেশন্স লীগের র‍্যাংকিং অনুসারে পূরণ করা হবে। মোট ১০টি কোয়ালিফাইং গ্রুপের মধ্যে ১ম ৫টি গ্রুপ হবে ৫টি দল নিয়ে এবং পরের ৫টি গ্রুপ হবে ৬টি দল নিয়ে। যেখানে ১ম ২দল অটোমেটিক্যালি কোয়ালিফাই করবে, বাদবাকি ৪দল প্লে-অফ খেলেই জায়গা নিশ্চিত করবে।

অন্য খবর  ক্যারিয়ারের শেষ ১০০ মিটারে তৃতীয় বোল্ট

ইউরোপিয়ান কাপে মোট ২০টি দল কোয়ালিফাই করবে। ‘ইউয়েফা নেশন্স লীগ’ নামে নতুন এই টুর্নামেন্ট দলগুলোকে ইউরোপিয়ান কাপে কোয়ালিফাই করার বাড়তি সুযোগ দিবে। ৪টি দল প্লে-অফ খেলার জন্য লড়বে, যা অনুষ্ঠিত হবে ২০২০এর মার্চে।

খেলোয়াড় এবং ক্লাবগুলোর উপর কতটুকু প্রভাব ফেলবে এই টুর্নামেন্ট?

ইউয়েফা নেশন্স লীগের ম্যাচগুলো ইউরোপিয়ান কাপের সাথে সমন্বয় করে অনুষ্ঠিত হবে। ইউয়েফার মূল লক্ষ্য ক্লাব এবং ইন্টারন্যাশনাল ফুটবলের মধ্যে ভারসাম্য বজায় রাখা। সে লক্ষ্যেই তারা এই টুর্নামেন্ট আয়োজন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে, যা খেলোয়াড়দের উপর চাপ কমাতে সহায়তা করবে এবং এতে খেলোয়াড়রা আগের চেয়ে বরং অনেক আগেই তাদের ক্লাবগুলোতে ফিরতে পারবে।

পরিশেষে আমরা ফুটবল ফ্যানরা কি পাচ্ছি?

এসব জমকালো টুর্নামেন্ট মূলত আমাদের মত ফুটবলপ্রেমীদের জন্যই। সারাবছর জুড়ে ফুটবলপ্রেমীদের মাতিয়ে রাখার জন্য নতুন নতুন এসব টুর্নামেন্ট আয়োজিত হচ্ছে। বিশ্বজুড়ে ফুটবলপ্রেমীরা এবার থেকে প্রত্যেক ভিন্ন বছরেই যেকোন একটি টুর্নামেন্টের স্বাদ পাবেন। এতে ফুটবল খেলুড়ে দেশগুলোর মাঝে আগের চেয়ে প্রতিযোগীতা আরো বেড়ে যাবে। ক্লাব কম্পিটিশনের মতন ন্যাশনাল টিমেও আগের চেয়ে তীব্র প্রতিদ্বন্দিতা হবে। প্লেয়াররাও চাইবেন ট্রফি জিতে ফ্যানদের উল্লাসে ভাসাতে।

dailyrecord.co.uk

Comments

comments