আবার মৈনটে পদ্মা পানিতে ডুবে যুবকের মৃত্যু

144

ঢাকার দোহার উপজেলায় মিনি কক্সবাজার খ্যাত মৈনট ঘাটের পদ্মা নদীর পানিতে ডুবে মো. রবিন (১৫) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। শনিবার সকালে মৈনট ঘাটের পদ্মা নদী থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। রবিন ঢাকার জুড়াইন এলাকার মো. রফিক হোসেনের ছেলে।

রবিনের বাবা জানান, শুক্রবার সকালে পিকনিকের উদ্দেশ্যে রবিন তার ৪০ জন বন্ধুর সঙ্গে দোহারের মৈনট ঘাটে যায়। বিকেল সাড়ে ৪টায় তার বন্ধুরা আমাকে ফোন দিয়ে জানায় পদ্মায় গোসল করতে নেমে সবাই উঠলেও রবিন ওঠেনি। আশপাশে খোঁজ করেও তাকে পাওয়া যাচ্ছে না। খবর পেয়ে রাত ৯টায় মৈনট ঘাটে আসি। সারারাত খোঁজাখুঁজির পর সকালে ডুবুরি দল এসে রবিনের মরদেহ উদ্ধার করেছে।

রবিন বাবা-মায়ের একমাত্র সন্তান। তিনি মোটর মেকানিক বলে জানান তার বাবা রফিক হোসেন। অন্যদিকে একমাত্র সন্তানকে হারিয়ে বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন রবিনের মা।

মাহমুদপুর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই নুরুল হুদা বলেন, পানিতে ডুবে যেন কারও প্রাণহানি না হয় সেজন্য আমরা সর্বদা ভ্রমণকারীকে পদ্মা নদীর পানির গভীরতা সম্পর্কে অবগত করি। পাশাপাশি আমাদের পুলিশ ফাঁড়ি ও দোহার প্রশাসনের পক্ষ থেকে পদ্মায় নেমে গোসল করা থেকে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। প্রাশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে অনেকেই গোসল করতে গিয়ে গভীর পানিতে তলিয়ে যায়। ফলে প্রাণহানি ঘটে। আগামীতে যেন কারও কোনো প্রাণহানির ঘটনা না ঘটে সেদিকে লক্ষ্য রাখা হবে।

অন্য খবর  আমরা প্রধানমন্ত্রীর প্রতিশ্রুতির বাস্তবায়ন চাই; সংবাদ সম্মেলনে ছাত্রসংগ্রাম পরিষদ

Comments

comments